একই বিমানে পাইলট বাবাকে দেখে খুশিতে আত্মহারা মেয়ে

ভিন্ন

একই প্লেনে বাবা যখন পাইলট তখন মেয়ের আনন্দ যেন ধরে না। গোএয়ারের একটি ফ্লাইটে দিল্লি যাচ্ছিল শিশুটি। প্লেনে ওঠার পর সে দেখতে পায় তার বাবা হাত নাড়ছেন। তা দেখে খুশিতে আ;ত্মহা;রা হয়ে যায় সে। বার বার বাবা, বাবা বলে চিৎকার করতে থাকে। বাবা-মেয়ের এই আনন্দময় মুহূর্তের ভিডিওটি ইতোমধ্যেই সামাজিক মাধ্যমে ভাইরাল হয়ে গেছে।

শিশুটির নাম শানায়া মতিহার। সে যখন দেখতে পেল যে, তার বাবাই তার ফ্লাইটের পাইলট সে রীতিমত অস্থির হয়ে গিয়েছিল। ককপিটের দরজার সামনে পাইলটের পোশাকে দাঁড়িয়ে মেয়েকে দেখে হাসিমুখে হাত নাড়তে থাকেন তিনি। মেয়েও দাঁড়িয়ে থেকে হাসতে থাকে আর বাবাকে ডাকতে থাকে।

সে সময় অন্য লোকজনও প্লেনে উঠতে শুরু করেন। শানায়াস নামে একটি ইনস্টাগ্রাম পেজ থেকে ওই ভিডিওটি পোস্ট করা হয়েছে। এটি মূলত ওই শিশুটির মায়ের। সম্ভবত তিনি নিজেই মোবাইলে ওই ভিডিওটি ধারণ করেছিলেন।

ভিডিওর পোস্টে লেখা ছিল, বাবার সাথে আমার প্রথম ফ্লাইট। তিনি আমাকে দিল্লি নিয়ে যাচ্ছেন। তাকে দেখার পর আমি রীতিমত অস্থির হয়ে গেছি… এটা ছিল এখন পর্যন্ত আমার সবচেয়ে আনন্দের ফ্লাইট। বাবা তোমাকে ভালোবাসি।

ইনস্টাগ্রামে ওই ভিডিওতে প্রায় দেড় লাখ লাইক পড়েছে এবং প্রায় ১২ লাখ মানুষ ভিডিওটি দেখেছেন। গত সপ্তাহে এই ভিডিওটি পোস্ট করা হয়। ছোট্ট শিশুটির এই সুন্দর ভিডিওটি ইনস্টাগ্রামের ব্যবহারকারীরা বেশ পছন্দ করেছেন। এক ব্যবহারকারী কমেন্ট করেছেন, খুব মিষ্টি।

অন্য একজন লিখেছেন, সম্ভবত এটা ওই পাইলটের জীবনের শ্রেষ্ঠ ফ্লাইট। অপর এক ব্যবহারকারী লিখেছেন, ছোট্ট প্রিন্সেসের জন্য ভালোবাসা। সে সত্যিই খুব মিষ্টি।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *